ডলারের দাদাগিরি এবার শেষ! ইরান, UAE, জাপান, রুশের সাথে ভারতীয় মুদ্রায় ব্যাবসা করবে ভারত।

ভারতে মোদী সরকার এমন বহুকিছু কাজ করেছে যা আগের কোনো সরকার করেনি। ভারতের বর্তমান মোদী সরকার ভারতে মেক ইন ইন্ডিয়া প্রকল্প চালু করছে যাতে ভারত দেশে তৈরি হওয়া প্রোডাক্ট রপ্তানি করতে পারছে। ভারত এখন আমদানি করা দেশ থেকে রপ্তানিকারী দেশে পরিবর্তিত হয়েছে। শুধু এই নয়, সরকার আরো একটা কাজ খুব ভালোভাবে করেছে সেটা হলো ভারতীয় মুদ্রাকে স্থাপিত করা। ভারত এবার ইরানের সাথে ভারতীয় মুদ্রায় ব্যাবসা আরম্ভ করা শুরু করে দিয়েছে। UAE এর সাথেও ডলারের পরিবর্তে ভারতীয় মুদ্রায় লেনদেন করার উপর আলোচনা চলছে। এমনকি জাপান ও রুশের সাথেও ভারত নিজস্ব মুদ্রায় ব্যাবসা করেছে।

এই ফলে একদিকে যেমন ভারতীয় কারেন্সি বিশ্বে স্থাপিত হবে তেমনি ব্যাবসার গতি অনেক দ্রুত হবে।ডলারের রেট সব সময় এক থাকে না, যার জন্য ভারতকে বহুবার ক্ষতির সম্মুখীন হতে হয়। ভারত একটা বড়ো দেশ এবং ভারত চাইলে নিজের মুদ্রাকে প্রাধান্য দেওয়ার উপর জোর প্রদান করতে পারে। ইরান, UAE , জাপান, রুশের সাথে ভারত নিজস্ব মুদ্রায় ব্যাবসা করতে শুরু করেছে যার ফলে এবার ডলারের দাদাগিরিও কমতে শুরু হয়েছে।

এই কারণেই সম্পতি ভারতীয় মুদ্রা লাগাতার শক্তিশালী হয়ে চলেছে। দেশের জন্য এটা একটা বড়ো সাফল্য কারণ এতে দেশ আর্থিকভাবে বিকাশ করতে শুরু করেছে যার আরো বড়ো ফল ভবিষ্যতে দেখা যাবে। ইউরোপের দেশ ইউরো যে ব্যাবসা করে, আমেরিকা সমস্ত জায়গায় ডলারে লেনদেন করে।

সেই অর্থে ভারত নিজের মুদ্রাকে বিশ্বে স্থাপিত করার অধিকার রাখে। আর এই কাজ মোদী সরকার শুরু করে দিয়েছে। মোদী সরকার লাগাতার ভারতের আর্থিক বিকাশের উপর কাজ করে চলেছে যার জন্য নিজস্ব মুদ্রাকে প্রতিস্থাপিত করার সিধান্ত নিয়ে ফেলেছে। ব্যাবসা-বাণিজ্য, লেনদেন ক্ষেত্রে ভারতীয় মুদ্রা ব্যাবহৃত হলে ব্যাবসা খুব দ্রুত গতিতে এগোবে এবং বিশ্বে ডলারের দাদাগিরি কমে যাবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close