ভক্তরা চাইলে দুই-তিনদিনও রেখে দেওয়া হবে তাঁর মরদেহ: শান্তনু ঠাকুর

দাহ করা হবে নাকি সমাধিস্থ করা হবে বীণাপাণি দেবীকে সে বিষয়েও দ্বিধাবিভক্ত ঠাকুর পরিবার৷ মঞ্জুলকৃষ্ণ ঠাকুরের ছেলে তথা বড়মার নাতি শান্তনু ঠাকুর বলেন, ‘‘সকলের প্রতিনিধি বড়মা৷ গোটা দেশে ছড়িয়ে রয়েছেন তাঁর ভক্তেরা৷ শেষ শ্রদ্ধা জানাতে চান প্রত্যেকেই৷ ভক্তরা চাইলে দুই-তিনদিনও রেখে দেওয়া হবে তাঁর মরদেহ৷’’

যদিও শান্তনু ঠাকুরের সঙ্গে সহমত নন বড়মার পুত্রবধূ মমতাবালা ঠাকুর৷ এ প্রসঙ্গে জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক বলেন,‘‘মঙ্গলবার রাত ৮.৫২ মিনিটে মারা গিয়েছেন বড়মা৷ এরপর এসএসকেএম থেকে ঠাকুরনগর পর্যন্ত এতটা রাস্তা নিয়ে আসা হয়েছে তাঁর দেহ৷ ইতিমধ্যেই বড়মার দেহে পচন ধরতে শুরু করেছে৷ বরফ দিয়ে কতক্ষণ রাখা সম্ভব হবে, তা জানিনা৷’’

শেষকৃত্য নিয়ে জটিলতার নিষ্পত্তিতে ঠাকুর পরিবার এবং মতুয়া মহাসংঘের সদস্যরা বৈঠক করছেন৷ আজ সন্ধে ছ’টা নাগাদ আবারও বৈঠক ডাকা হয়েছে৷ ওই বৈঠকেই নেওয়া হতে পারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত৷ এছাড়া মতুয়া মহাসংঘের পরবর্তী প্রধান কে হবেন, তা নিয়েও ভোটাভুটি হতে পারে ওই বৈঠকে৷

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close