মুসলিম হয়ে বিজেপিকে সমর্থন করার অপরাধে তৃণমূলের হাতে আক্রান্ত মুসলিম মহিলা!



এরাজ্যে জয় শ্রী রাম বলা যেমন অপরাধ, তেমনই মুসলিম হয়ে বিজেপিকে (Bharatiya Janata Party) সমর্থন করাও অপরাধ। আর সেইজন্য এক মুসলিম মহিলাকে মারধরের অভিযোগ উঠলো তৃণমূলের (All India Trinamool Congress) বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে ক্যানিং থানার উত্তর পাঙ্গাশখালি গ্রামে, আক্রান্ত মহিলার নাম সুফিয়া লস্কর (৩৫)। সুফিয়ার পরিবার থেকে তৃণমূলের মহিলা কর্মীদের বিরুদ্ধে ক্যানিং থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, সংখ্যালঘু সম্প্রদায় ভুক্ত হয়েও বিজেপিকে সমর্থন করার ঘটনাটি মানতে পারেনি স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব। স্থানীয় সূত্র থেকে জানা যায় যে, আজ তৃণমূলের কমপক্ষে ৪০ জন মহিলা কর্মী সুফিয়ার বাড়িতে চড়াও হয়। লোহার রড ও বাঁশ দিয়ে মারধর করা হয় সোফিয়াকে। বাড়ির লোকজন ঘটনাস্থলে আসতেই পালিয়ে যায় তৃণমূলের মহিলা কর্মীরা। সুফিয়াকে গুরুতর আহত অবস্থায় প্রথমে ক্যানিং মহাকুমা হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়, সেখানে তাঁর অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে কলকাতার চিত্তরঞ্জন মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়।

স্থানীয় বিজেপি কর্মীরা জানান, এর আগেও বহুবার সুফিয়ার উপরে আক্রমণ করার চেষ্টা এবং তাঁকে হুমকি দিয়েছিল তৃণমূল নেতৃত্ব। আর সেই নিয়ে ক্যানিং থানায় অভিযোগ দায়ের করেছিল সুফিয়া। থানা থেকে তৃণমূলের বিরুদ্ধে করা অভিযোগ তোলার জন্য সুফিয়াকে হুমকি দিতে থাকে তৃণমূলের কর্মীরা। তৃণমূলের হুমকির পর আবারও থানায় অভিযোগ জানায় সুফিয়া। আর এরপরেই তৃণমূলের মহিলা কর্মীরা সুফিয়ার বাড়িতে চড়াও হয়ে, তাঁকে বেধড়ক মারধর করে। এই ঘটনার পর উত্তেজনা ছড়ায় এলাকায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে বসানো হয়েছে পুলিশ পিকেট।

এই ঘটনার পর স্থানীয় বিজেপি নেতৃত্ব সুফিয়ার বাড়িতে যান, তাঁর পাশে থাকার সম্পূর্ণ আশ্বাস দেন তাঁরা। এবং এই ঘটনায় জড়িত তৃণমূলের কর্মীদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যাবস্থা নেওয়ার জন্য পুলিশের কাছে যায় বিজেপির নেতারা। যদিও স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব এই ঘটনা পুরোপুরি অস্বীকার করেছে।

 



Source link

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close