ইন্টেলিজেন্স বিউরো থেকে সরাসরি রিপোর্টিং আসবে অমিত শাহের কাছে! ঘুম উড়লো পাকপ্রেমী দেশদ্রোহীদের।



কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ পদে বসতে না বসতেই একশন মুডে চলে এসেছেন। নিজের দুজন রাজ্যমন্ত্রী নিত্যনাথ রায় ও জী কিষাণ রেড্ডিকে বড় দায়িত্ব দিয়েছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্ৰালয়ের সঙ্গে যুক্ত বেশিরভাগ মুখ্য কাজ রাজ্যমন্ত্রী দেখবে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্ৰালয়ের পক্ষ থেকে জারি কার্য বণ্টন পত্র থেকে এই ব্যাপারে জানা গেছে।  বড় খবর এই যে, ইন্টিলিজেন্স বিউরোর  রিপোর্টিং সোজা সুজি অমিত শাহ  কে করা হবে। যার ফলে আতঙ্কবাদী, পাকপ্রেমী ও দেশবিরোধীদের জন্য আরো বড় সমস্যা তৈরি হতে পারে।
আসলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি তিন দিন ক্যাবিনেটের বৈঠকে মন্ত্রীদের বলেছিলেন যে তিনি নিজের রাজ্য মন্ত্রীদের সাইড লাইন করার জায়গায় অধিক থেকে অধিক দেবে, যাতে ওনারা বুঝতে পারে মন্ত্রাণালয় কিভাবে চলে। অমিত শাহ মোট ২১ ডিভিশন এর সঙ্গে যুক্ত কাজ দুটি ভাগে দুটি মন্ত্রীকে ভাগ করে দিয়েছেন।

রাজ্যমন্ত্রী  কিষাণ রেড্ডিকে রাজনীতি ও সুরক্ষার শর্তাবলীর থেকে অনেক গুরুত্বপূর্ণ হিসাবে ধরা হচ্ছে জম্মু-কাশ্মীরের এবং পূর্বউত্তর মামলা গুলি, সাইবার সিকিউরিটি ডিভিশন এলার্ট হয়েছে। সেখানে অন্য রাজ্য মন্ত্রী নিত্যনন্দ রায় কে কেন্দ্র রাজ্য, আইপীএস অফিসারের ট্রান্সফার-পোস্টিং এর সঙ্গে জড়িত পুলিশ-I এবং ফরেন্সের মতো ডিভিশন দেওয়া হয়েছে। যেখানে গৃহমন্ত্রী অমিত শাহ আইবী এর অতিরিক্ত ক্যাবিনেট ও রাষ্ট্রপতি ভবনের সঙ্গে জড়িত সব মামলা দেখবেন। এটি প্রথমবার যখন জম্মুকাশ্মীর ও উত্তর পুর্ব ভারতের মামলাকে একই মন্ত্রীর অধীনে দেওয়া হয়েছে।

গত NDA  সরকারকে রাজ্যমন্ত্রী কিরেন রিজ্জুকে উত্তরপূর্ব ডিভিশন ও হংসরাজ অহিরকে জম্মু-কাশ্মীর ডিভিশন দেওয়া হয়েছিল। রিজিজু এইবার  যুবা ও রেল মন্ত্রাণালয়ের মন্ত্রী হয়েছেন। অন্যদিকে নির্বাচিত হেরে যাওয়ার কারণে হংসরাজ আহির মন্ত্রী হয়নি। সূত্র বলছে যে গৃহমন্ত্রী অমিত শাহ এর থেকে সবুজ সিগনাল পাওয়ার পরই ক্রিয়াকলাপের ভাগাভাগির সঙ্গে জড়িত অর্ডার মঙ্গলবার জারি হয়। একজন অফিসার বলেন- যেহুত এই সময় সংসদ অধিবেশন চলছে, এইসময় প্রশ্নের উত্তরে জন্য দুজন মন্ত্রীর দরকার ছিল। এই কারণেই এই আলোকেশন অর্ডার জারি করা হয়।



Source link

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close