বড় খবরঃ সুনীল দেওধরের হাত ধরে, রাজ্যের ১৮ জন বিধায়ক যোগ দিতে চলেছেন বিজেপিতে


লোকসভা ভোটের পর দেশের সর্বত্রই বিভিন্ন দল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদানের হিড়িক পড়েছে। আর সেই ক্রমেই অন্ধ্র প্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রবাবু নাইডুর তেলেগু দেশম পার্টি (TDP) এর উপর সংকটের মেঘ দেখা যাচ্ছে। অন্ধ্র প্রদেশে ভারতীয় জনতা পার্টি-র ইনচার্জ সুনীল দেওধর দাবি করেছেন যে, TDP এর ১৮ বিধায়ক এবং ৩০ এমএলসি বিজেপির সম্পর্কে আছে।

ভারতীয় জনতা পার্টির মহাসচিব দেওধর এটাও বলেছেন যে, চন্দ্রবাবু নাইডু দুই বছরের মধ্যে জেলে যাচ্ছেন এবং রাজ্যে বিজেপি মুখ্য বিরোধী দল হয়ে উঠে আসবে। অন্ধ্র প্রদেশে গত বিধানসভা নির্বাচনে YSR কংগ্রেস একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা হাসিল করেছে। এরপর জগন মোহন রেড্ডি অন্ধ্র প্রদেশের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন।

রেড্ডি মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার পরেই চন্দ্রবাবু নাইডু আর ওনার ছেলে নারা লোকেশের সুরক্ষায় রদ বদল করেছেন। এরসাথে চন্দ্রবাবু নাইডু মুখ্যমন্ত্রী থাকাকালীন যেই প্রজ্ঞা বেদিকা বিল্ডিং বানিয়েছিলেন, সেখানে নব নির্বাচিত মুখ্যমন্ত্রী বুলডোজার চালান।

এছাড়াও কদিন আগে টিডিপি এর চারজন রাজ্যসভা সাংসদ ভারতীয় জনতা পার্টিতে যোগদান করেন। চন্দ্রবাবু নাইডু নিজের পরিবারের সাথে ছুটি কাটাতে বিদেশে যখন গেছিলেন, তখনই টিডিপি এর ওই চার রাজ্যসভার সাংসদ বিজেপিতে যোগদান করেন।

টিডিপি এর চার রাজ্যসভার সাংসদ সি.এম রমেশ, টি.জি ভেঙ্কটেস, জি মোহন রাও, ওয়াইস চৌধুরী বিজেপিতে যোগ দেন। এই সাংসদদের রাজ্যসভার সদস্যতা এখনো বৈধ। এনাদের উপর দল বদলের আইন লাগু হয়নি। দল বদল আইন অনুযায়ী, যদি কোন দলের তিন ভাগের দুই ভাগ সাংসদ/বিধায়ক অন্য দলে চলে যান, তাহলে তাঁদের উপরে এই আইন লাগু হয়না।



Source link

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close