দুর্গা বিসর্জনে পাথরবাজি করেছিল কট্টরপন্থীরা! গ্রেফতার হাবিবুল্লাহ, আব্দুল রজ্জাক সহ ৮ জন।


পুরো দেশ যখন দুর্গাপূজায় মেতে উঠেছিল তখন উত্তরপ্রদেশের বলরামপুর থেকে কট্টরপন্থীদের উৎপাতের ঘটনা সামনে এসেছিল। যেখানে দেবী দুর্গা মায়ের বিসর্জনের সময় কট্টরপন্থীরা পাথরবাজি করে। কাশ্মীরে যেভাবে ইসলামিক জেহাদীরা পাথর ছুঁড়ে সেই একইভাবে পাথর ছোড়া হয়। ঘটনায় অনেক হিন্দু যুবক আহত হন। প্রত্যক্ষদর্শী সুরজ পান্ডে বলেন, বিসর্জন বের করার আগে আমরা মুসলিম পাড়ার লোকদের সাথে আলোচনা করেছিলাম। তারা শান্তিপূর্ণভাবে বিসর্জনে সাহায্য করার আশ্বাস দিয়েছিলেন। কিন্তু বিসর্জন করার সময় উল্টো ঘটনা ঘটে।

এখন প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, দূর্গাপূজা বিসর্জনে পাথরবাজি করা ৮ অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আব্দুল রজ্জাক, আব্দুল করীম সহ ৮ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। এই সমস্ত মামলায় পুলিশ সাধারণ সক্রিয় থাকে না। তবে যেহেতু ঘটনাটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে পড়ে তাই পুলিশ পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হয়। একইসাথে যেহেতু ঘটনাটি উত্তরপ্রদেশে ঘটেছে তাই সেখানে পুলিশের সক্রিয়তার থাকা স্বাভাবিক। ৮ ই অক্টোবর মুসলিম বহুল এলাকা দিয়ে হিন্দু সমাজ দেবী দুর্গার বিসর্জনের জন্য যাচ্ছিল। সেই সময় কট্টরপন্থীরা হামলা করে।

কট্টরপন্থীরা জেহাদী মানসিকতা নিয়ে পাথরবাজি করে এবং লাঠি, তরোয়াল নিয়ে  আক্রমন করে। সেই ভিডিও শীঘ্রই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে পড়ে। পুলিশ অভিযুক্ত আলী হাসান, জুলফিকার, আবদুল রাজ্জাক, মান্নাওয়ার, মোশতাক, হাবিবুল্লাহ, আবদুল করিম, আবদুল সালামকে গ্রেপ্তার করেছে। এই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রশাসন আরো কার্যবাহী করবে বলে জানা গেছে। আব্দুল রজ্জাক, হাবিবুল্লাহদের পাথরবাজির ফলে ১২ জন আহত হয়েছিল। এলাকায় শান্তি বজায় রাখতে বহু সংখ্যায় পুলিশ নিযুক্ত করা হয়েছে।





Source link

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close