কাশ্মীরে আপেলে লেখা হল দেশ বিরোধী স্লোগান, বহিস্কারের হুমকি দিলো ক্ষুব্ধ ব্যাবসায়িরা


জম্মু কাশ্মীরের কাঠুয়া জেলার ফল বিক্রেতা দ্বারা কেনা কাশ্মীর আপেলের ডিব্বায় ‘হামে চাহিয়ে আজাদি”, ‘মুঝে বুরহান ওয়ানি পসন্দ হে” আর ‘জাকির মুসা ওয়াপস আও” এর মতো দেশ বিরোধী স্লোগান লেখা ছিল। এরপর পুলিশ মামলার তদন্ত শুরু করে। ফল বিক্রেতারা বুরধবা জানায়, সরকার যদি পদক্ষেপ নিতে ব্যার্থ হয় তাহলে কাশ্মীরি আপেল কেনা ছেড়ে দেবো আমরা। কারণ আমরা জেনে বুঝে দেশদ্রোহীদের হাতে টাকা তুলে দিতে পারবনা। ফল বিক্রেতা থোক বাজার থেকে আপেল কেনার পর সেই ডিব্বায় এই দেশ বিরোধী স্লোগান গুলো দেখে।

কাঠুয়া থোক বাজারের সভাপতি রোহিত গুপ্তার নেতৃত্বে ফল বিক্রেতারা সেখানা বিক্ষোভ প্রদর্শন করে, এবং সেখানে তাঁরা পাকিস্তান তথা জঙ্গি বিরোধী স্লোগান দেওয়া শুরু করে দেয়। গুপ্তা জানান, ‘ এই ডিব্বা গুলো কাশ্মীর থেকে এসেছে, আর এর মধ্যে ইংরেজি আর উর্দুতে লেখা ছিল।” রোহিত গুপ্তা সরকার আর পুলিশকে এই দেশ বিরোধী মানুষদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার দাবি করেন।

পুলিশ এই মামলার তদন্ত শুরু করে দিয়েছে, আর ফল বিক্রেতাদের সাথে দেখা করেন। বরিষ্ঠ পুলিশ আধিকারিক মাজিদ বলেন, ‘আমরা এই মামলার তদন্ত শুরু করে দিয়েছি।” আপেলে ‘ভারত ওয়াপস যাও – ওয়াপস যাও”, ‘মেরি জান ইমরান খান” আর পাকিস্তান জিন্দাবাদ এর স্লোগান লেখা ছিল।

জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার পর থেকে ভারতের উপর চরম তেঁতে রয়েছে পাকিস্তান। কোন না কোন কারণে তাঁরা বারবার কাশ্মীরে অশান্তি ছড়ানোর চেষ্টা করছে। জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার পর থেকে প্রতিদিনই লাগাতার সীমান্তে ফায়ারিং করে চলেছে পাকিস্তান। আরেকদিকে বারবার সীমান্ত পার করে ভারতে জঙ্গি ঢোকানর চেষ্টা চালাচ্ছে তাঁরা। কিন্তু ভারত আর ভারতীয় সেনা তাঁদের সমস্ত চেষ্টা বারবার ব্যার্থ করে দেয়।



Source link

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close